গৃহবধূকে ধর্ষণের ঘটনায় চাঞ্চল্য


 হাওড়ার পাঁচপড়া পঞ্চায়েতের কোলে পাড়ায় এক গৃহবধূ ধর্ষণের শিকার হয়েছেন বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে। গুরুতর আহতাবস্থায় অবস্থায় তাকে হাওড়া সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।
স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, স্বামী দিন মজুরের কাজ করেন। ৫ মাসের সন্তানসম্ভবা এই মহিলা তার স্বামীর সাথেই ভাড়া বাড়িতে থাকেন। শনিবার মধ্য রাতে বাথরুমের প্রয়োজনে স্বামী ও স্ত্রী উঠে বাথরুমে যায়। বাথরুম থেকে ফেরার সময় ওপর আরেক প্রতিবেশী ভাড়াটে সন্তোষ মাহাতো খুসবুর স্বামীকে ডাকে ও তাকে সিগারেট এনে দিতে বলে। তার স্বামী পারবে না বললে তাকে বাইকে করে সিগারেট কিনে আনার কথা বলে। এরপর তারা দুজনে বাইকে চেপে চলে যায়। সিগারেট কেনার নাম করে অভিযুক্ত মদ, মদের সাথে খাবার জিনিষ কিনে তাদের বাড়িতে বসে খাবার প্রস্তাব দেয়। খুসবুর স্বামী ইতিমধ্যেই নেশা করে ছিলো। আবার মদ খাবার ইছেতে সেও রাজি হয়ে যায়। এরপর বাড়ি ফিরে তারা মদ্যপান করে। মদের মধ্যে ঘুমের ওষুধ মিশিয়ে দেওয়ায় সে অচৈতন্য হয়ে পড়ে। সেই পরিস্থিতির সুযোগ নিয়ে অভিযুক্ত খুশবুকে ধর্ষণ করে বলে অভিযোগ।  এরপরে সকালে সে অন্যান্য প্রতিবেশীদের জানায়। নাজিরগঞ্জ থানায় লিখিত অভিযোগ করে। তার শারীরিক অবস্থার অবনতি হওয়ায় তাকে হাওড়া জেলা হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। গোটা ঘটনার তদন্ত করে দেখছে নাজিরগঞ্জ থানার পুলিশ। অভিযুক্ত সন্তোষ মাহাতো পলাতক। তার খোঁজ ইতিমধ্যে শুরু করেছে নাজিরগঞ্জ থানার পুলিশ।
Loading...

No comments

Powered by Blogger.