সততার পুরস্কার ১ লাখ+


গত শনিবার যুক্তরাষ্ট্রের বোস্টনে এক গৃহহীন ব্যক্তি ৪০,০০০ ডলার নগদ অর্থ খুঁজে পান। গ্লেন জেমস নামক ওই ব্যক্তি প্রাপ্ত অর্থের পুরোটাই পুলিশের কাছে জমা দেন। পুলিশ পরে আসল মালিককে খুঁজে বের করে তার অর্থ ফেরত দেন।

মানবতা যে এখনও হারিয়ে যায়নি তার জ্বলন্ত উদাহরণ এটি। দরিদ্রতার কাছে নিজের সততাকে বিকিয়ে দেননি জেমস গ্লেন। এ ঘটনা যদি আপনাকে আলোড়িত করে থাকে তাহলে ঘটনার পরবর্তী অংশ নিঃসন্দেহে আরও বেশি নাড়া দেবে।
 
ইথান হুইটিংটন নামক ২৭ বছর বয়সী এক ব্যক্তি অনলাইনে জেমসের এই মহৎ কীর্তির কথা জানতে পারেন। ইথানের মনে হয়েছে এরকম সততার পরিচয় দেয়ার বিনিময়ে শুধুমাত্র পুলিশের তরফ থেকে বাহবা ছাড়াও আরও বেশি কিছু পাওয়ার যোগ্য জেমস। তাই তিনি নিজ উদ্যোগে তার ওয়েবসাইটের মাধ্যমে গৃহহীন জেমসের জন্য ৫০০০০ ডলার উত্তোলন করার পদক্ষেপ নেন।
 
আলাবামা অঙ্গরাজ্য নিবাসী ইথানের সঙ্গে জেমসের কোন পূর্বপরিচয় নেই। জীবনে কখনও বোস্টনে যাওয়াই হয়নি তার। ৫০০০০ ডলারের লক্ষ্য নিয়ে দু’দিনেই উঠেছে ৭২০০০ ডলার। এখন পর্যন্ত ১,৪০,০০০ ডলারের বেশি উত্তোলন হয়েছে। ইথানের কাছে জেমসের ঘটনা অনুপ্রেরণামূলক মনে হয়েছে। বার্তা সংস্থা রয়টার্সকে তিনি বলেন, ‘আমরা সবসময় নেতিবাচক সংবাদের ভারে এতটাই বিপর্যস্ত যে, জেমসের মতো মানুষদের গল্প অন্যদেরকে অনুপ্রাণিত করে; সবাইকে এ আশ্বাস দেয় যে বিশ্বের সবকিছু আসলে খারাপ নয়।’
 
উত্তোলনকৃত অর্থ কিভাবে জেমসের হাতে পৌঁছানো যায় তার ব্যবস্থা করছেন ইথান। জেমসের জন্য অনেকে জামা-কাপড়, খাদ্য এমনকি কম্পিউটার দান করতে চেয়েছেন বলে ইথান জানিয়েছেন।
Loading...

No comments

Powered by Blogger.