সামনেই অযোধ্যা মামলার রায়, উত্তরপ্রদেশে অতিরিক্ত ৪০০০ সেনা পাঠাল কেন্দ্র

Image result for ayodhya 4000 para military force
সামনে অযোধ্যা রায়। হিন্দু-মুসলিম দু’পক্ষই শান্তি-শৃঙ্খলা বজায় রাখার আর্জি জানাচ্ছে। শীর্ষ কোর্টের রায় মেনে নেওয়ার কথা বলছে সকলেই। কিন্তু বাস্তবতা হল– কস্মিনকালেও সবাই সুবোধ হয়ে যায়নি। এই রায়ের পরও যে সবাই শান্ত থাকবে জোর দিয়ে একথা বলা কঠিন। আসন্ন অযোধ্যা রায়ের দিকে তাকিয়ে রয়েছে গোটা দেশ। সুপ্রিম কোর্টের প্রধান বিচারপতি রঞ্জন গগৈ আগামী ১৭ নভেম্বর অবসর নেবেন। ফলে ওইদিন বা তার আগেই তিনি অযোধ্যা মামলার রায় ঘোষণা করতে পারেন বলে খবর। অযোধ্যা মামলা নিয়ে সুপ্রিম কোর্টের রায় কী হতে পারে– তা নিয়ে স্বাভাবিকভাবেই শুরু হয়ে গিয়েছে শেষ মুহূর্তের কাউন্ট ডাউন।
Image result for ayodhya 4000 para military force


এই পরিস্থিতিতে অযোধ্যা সহ গোটা উত্তরপ্রদেশে কোথাও যাতে আইন-শৃঙ্খলাজনিত কোনও সমস্যা না হয়– সেজন্য সতর্ক প্রশাসন। রাজ্যে যোগী আদিত্যনাথ সরকারের তরফে আগেই নিরাপত্তা ব্যবস্থা জোরদার করা হয়েছে। আর এবার পদক্ষেপ গ্ৰহণ করল কেন্দ্রের স্বরাষ্ট্রমন্ত্রক।  মঙ্গলবার অতিরিক্ত ৪০০০ আধা সামরিক বাহিনী উত্তরপ্রদেশে পাঠাল কেন্দ্র। রায় ঘোষণা ও তার পরবর্তী সময়ে রাজ্যের কোথাও যাতে কোনও অপ্রীতিকর ঘটনা না ঘটে– সেজন্য এই অতিরিক্ত বাহিনী পাঠানো হয়েছে যোগীর রাজ্যে। উত্তরপ্রদেশে ১৫ কোম্পানি আধা সামরিক বাহিনী পাঠানোর বিষয়ে সোমবারই অনুমোদন দেয় কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্র মন্ত্রক। ১৮ নভেম্বর পর্যন্ত ওই বাহিনীকে উত্তরপ্রদেশে রাখা হবে। 
Image result for ayodhya 4000 para military force


জানা গিয়েছে– এই ১৫ কোম্পানি আধা সামরিক বাহিনীর মধ্যে রয়েছে তিন কোম্পানি করে বিএসএফ– আরএএফ– সিআইএসএফ– আইটিবিপি এবং এসএসবি। এ ছাড়াও আরও ১৫ কোম্পানি সশস্ত্র কেন্দ্রীয় বাহিনীও পাঠানো হবে উত্তরপ্রদেশে। তাদেরও ১৮ নভেম্বর পর্যন্ত যোগীর রাজ্যে থাকতে বলা হয়েছে। রাজ্যের ১২টি স্পর্শকাতর জেলায় তাদের মোতায়েন করা হবে। আরও জানা গিয়েছে– অযোধ্যা ও বারাণসী ছাড়াও আধা সামরিক বাহিনী মোতায়েন করা হবে কানপুর, আলিগড়, লখনউ ও আজমগড়ের মতো জেলাগুলিতে।
Loading...

No comments

Powered by Blogger.