অযোধ্যা মামলা রায়ঃ বিতর্কিত জমি হিন্দু পক্ষকে, মুসলিম পক্ষকে বিকল্প জমি দেওয়ার ঘোষণা

Image result for ram lalla virajman

ঐতিহাসিক অযোধ্যা মামলার রায় ঘোষণা হল আজ।  ভূতত্ব বিভাগের দাখিল করা তত্ত্বের ওপর ভিত্তি করে রায় ঘোষণা করছে আদালত, একথা স্পষ্ট করা হয় পাঁচ বিচারপতির বেঞ্চ-এর পক্ষ থেকে। বিতর্কিত ২.৭৭ একর জমির ভবিষ্যৎ নিয়েই ছিল মূল ঘোষণা। ভূতত্ব বিভাগের দেওয়া রিপোর্ট অনুযায়ী, বিতর্কিত জমি খননের ফলে যেসব জিনিস পাওয়া গেছে, তা নন-ইসলামিক। ASI-র রিপোর্টে সিলমোহর দিয়ে রায়ে প্রধান বিচারপতি রঞ্জন গগৈ সাফ বলেন, ‘ফাঁকা জমিতে বাবরি মসজিদ তৈরি হয়নি। এর আগে সেখানে অমুসলিম সৌধের অস্তিত্বের প্রমাণ পাওয়া গিয়েছে। তবে সেই কাঠামো ভাঙা হয়েছিল কি না, তা নিশ্চিত নয়।’ 
 Image result for ram lalla virajman

 শীর্ষ আদালতের পক্ষ থেকে জানানো হয়, বিতর্কিত জমি হিন্দু পক্ষকেই দেওয়া হবে। এক ট্রাস্টের হাতে দেওয়া হবে এই জমি। তাতে রামলালা বিরাজমান পক্ষও থাকবে। রামলালা বিরাজমানকে লিগাল এনটিটি হিসেবে দেখা হয়েছে। অপরদিকে মুসলিম পক্ষকে ৫ একর জমি দেওয়া হবে অযোধ্যার কোনও গুরুত্বপূর্ণ জায়গায়। এই বিষয়ে তিন মাসের মধ্যেই স্কিম তৈরি করতে আদেশ দিয়েছে আদালত। কেন্দ্র ও রাজ্য সরকার মিলিত ভাবে এই স্কিম তৈরি করবে। সুন্নি ওয়াকফ বোর্ড প্রমাণ করতে পারেনি ঐ জায়গায় শুরু থেকেই কোনও মসজিদ ছিল।
Related image

এদিনের আদালতের রায়ে অন্যতম উল্লেখযোগ্য দিক হল, অযোধ্যা বিবাদকে কেন্দ্র করে দুইটি এমন ঘটনা যার নিন্দা করেছে আদালত। ১৯৪৯ সালে বিতর্কিত সৌধে রামের মূর্তি রাখা এবং ১৯৯২ সালের ৬ই ডিসেম্বর মসজিদ ধ্বংসের ঘটনা অনুচিত ছিল বলে জানায় আদালত।
Loading...

No comments

Powered by Blogger.