স্ত্রীর পাওনা পরিশোধ করলেন কয়েনের মাধ্যমে


ইন্দোনেশিয়ার এক ব্যক্তির কাছে তার প্রাক্তন স্ত্রীর ভরণপোষণ বাবদ পাওনা হয়ে দাঁড়িয়েছিল প্রায় সাড়ে আট লাখ টাকা। আদালতে স্ত্রীর এই পাওনা তিনি পরিশোধ করলেন ঠিকই, কিন্তু পুরোটা দিলেন কয়েনের মাধ্যমে।
সুশিলার্তো নামে ওই ব্যক্তির আইনজীবী জানান, এই পরিমাণ কয়েনের ওজন হয়ে দাঁড়িয়েছিল প্রায় ৮৯০ কিলোগ্রাম। কয়েকটি বস্তায় ভরে ঠেলাগাড়ির সাহায্যে আদালত কক্ষে কয়েনগুলো বয়ে আনেন তার দুই বন্ধু ও এক বৃদ্ধ।
ভরণপোষণের খরচ এরকম বিচিত্র উপায়ে পরিশোধ করতে গেলে বেঁকে বসেন সুশিলার্তো প্রাক্তন স্ত্রী ও তার আইনজীবী। আদালত কক্ষে তাদের অপমান করার জন্য এমন পন্থা অবলম্বন করা হয়েছে, এমনটাই অভিযোগ করে বসেন তারা।
তবে সুশিলার্তোর আইনজীবী জানান, কয়েনের মাধ্যমে ভরণপোষণ পরিশোধ করতে দেখে প্রথমে আমি নিজেও বিস্মিত হয়ে গিয়েছিলাম। কিন্তু এসব অর্থের বেশিরভাগই আমার মক্কেলের বন্ধু-বান্ধব ও পরিবার-পরিজনের দান করা। তারা বেশিরভাগ টাকাই কয়েনের মাধ্যমে দান করেছেন। কাউকে অপমান করার উদ্দেশ্যে আমার মক্কেল এ কাজ করেননি।
দু’পক্ষের মধ্যে অনেকক্ষণ তর্কাতর্কি চলার পর অবশেষে কয়েনগুলো গণনার নির্দেশ দেন আদালত। শেষপর্যন্ত কয়েনের মাধ্যমেই ভরণপোষণের টাকা নিতে হয় সুশিলার্তোর প্রাক্তন স্ত্রীকে।

Loading...

No comments

Powered by Blogger.