পরকীয়া করে প্রেমিকের বাড়ির লোকের কাছে গনধোলাই খেল গৃহবধূ



স্নেহা চক্রবর্তী,বীরভূম:   পরকীয়া করে নিজের স্বামী ও মেয়েকে ছেড়ে প্রেমিকের বাড়িতে গিয়ে গণধোলাই খেলো গৃহবধূ।
স্থানীয় সূত্রে জানা যায় বীরভুমের বোলপুর বাড়ি পূজা ভান্ডারীর(২৩) সঙ্গে প্রেমের সম্পর্ক গড়ে ওঠে বোলপুরে কাজ করতে আসা শফিকুল ইসলামের(২৮) সঙ্গে। কিন্তু ছেলেটি ভিন্ন ধর্মের হওয়ায় পূজার বাড়ি এবং এলাকার মানুষ মেনে নিতে পারেনি, বাধ্য হয়ে শফিকুল এর সঙ্গে রাতের অন্ধকারে পালিয়ে বিয়ে করে পূজা। সংসার করতে থাকে কলিকাতার দমদম এলাকায়। পূজা থেকে নাম ভাঁড়িয়ে হয়ে যায় মরিয়ম বিবি।  সংসার করা কালীন একটি কন্যা সন্তানের জন্ম দেয় মরিয়াম। যার নাম রাখে জুলিয়াস্(৪) কিন্তু পূজা ওরফে মরিয়মের কথায় ধরা পড়ে,সে সফিকুলকে ভালোবেসে বিয়ে করে ভুল করেছিল। তাই সে মনের মানুষ পাবার জন্য মুখিয়ে থাকে। সুযোগ এসে যায় তার সামনে।  দমদম এলাকায় কাজ করতে যাওয়া জয় জ্বালানির প্রেমে হাবুডুবু খেতে থাকে সে। পরকীয়ায় যে এতো সুখ সে আগে জানতো না বলে স্বীকার করে।

অবশেষে গত অষ্টমী দিন জয়ের সঙ্গে দমদম এলাকা ছেড়ে পালিয়ে আসে। পাথরপ্রতিমা ব্লকের ঢোলাহাট থানার দিগম্বরপুর গ্রাম পঞ্চায়েতের গুরুদাসপুরের খালপাড়ে। ভেবেছিলো তার স্বামীর বাড়ির লোকজন তার খোঁজ পাবে না। এখানে এসে তুলসী মঞ্চের ধারে শাঁখা-সিঁদুর নোয়া পরে নেয় মরিয়াম। আবার ফিরে পায় তার পূর্বের নাম পূজা। তবে এখন তার নাম পূজা জ্বালানি, স্বামী জয় জ্বালানি। গোপন সূত্রে খবর পায় তার স্বামীর বাড়ির লোকজন। আজ সন্ধ্যায় বাচ্চা মেয়ে এবং লোকজন নিয়ে এসে হাজির হয় জয়ের বাড়িতে।  খবরটি চাউর হয়ে যাওয়ায় এলাকার মহমহিলারা মেয়েটিকে দেখার জন্য তার বাড়িতে যায়। মেয়েটি তার পুরানো স্বামীর বাড়িতে ফিরে যেতে অস্বীকার করে। শুরু হয়ে যায় গণধোলাই। কিন্তু গণধোলাইএ  ও মেয়েটি তার পুরাতন স্বামীর বাড়িতে ফিরে যেতে চায় না। সে চায় তার বর্তমান স্বামীর বাড়িতে থাকতে। অবশেষে রণেভঙ্গ দেয় তার স্বামী ছোট মেয়েটিকে নিয়েছে বাড়ি ফিরে যায়। অবশেষে এলাকার মহিলারা মারধোর করলেও পরকীয়ার জয় যে হয়েছে সেটাও তারা মেনে নেয়।
Loading...

No comments

Powered by Blogger.