বিয়েতে রাজি না হওয়ায় আত্মঘাতী যুবক





চাঁদনী, পূর্ব মেদিনীপুর :প্রেম দিবসের দিনেই প্রেমিকের ঝুলন্ত দেহ উদ্ধার। ঘটনাটি ঘটেছে কোলাঘাট ব্লকের দক্ষিণ জিঞাদা গ্ৰামে।ঘটনাকে ঘিরে ব্যাপক চাঞ্চল্য ছড়ায় এলাকায়‌। পুলিশ জানিয়েছে, মৃতের নাম বিশ্বজিৎ ওঝা (২৫)।

স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, বিশ্বজিৎ আরবের ওমানে এক বেসরকারি সংস্থার ওয়েল্ডিংয়ের কাজে কর্মরত ছিলেন। দুদিন আগেই বাড়ি ফিরেছিল সে। ওমানে থাকাকালীনই ফেসবুকে কলকাতার বেলঘড়িয়ার এক যুবতীর সাথে আলাপ হয় তার। ধীরে ধীরে গড়ে ওঠে প্রেমের সম্পর্ক। পরিবারের অভিযোগ ওই যুবতী বিবাহিত ও দুই সন্তানের মা হওয়া সত্বেও বিশ্বজিতের সাথে প্রেমের সম্পর্ক চালিয়ে যায়। বিশ্বজিৎ বাড়ি ফিরে আলোচনা করে যুবতীকে বিয়ের প্রস্তাব দেওয়াতেই বেঁকে বসে সে। জানিয়ে দেয় সে বিয়ে করতে পারবে না। কারন সে বিবাহিত ও তার দুটি সন্তান রয়েছে। ঘটনা জানার পরই নিজের ফেসবুক অ্যাকাউন্টটি ডিঅ্যাকটিভেট করে। বৃহস্পতিবার সকালে বিশ্বজিৎ মায়ের কাপড় নিয়ে সিলিং ফ্যানে ঝুলে আত্মহত্যা করে। সকালে বাবা রঞ্জিত ওঝা কাজে যাওয়ার সময় ছেলের সাথে দেখা করার জন্য ডাকাডাকি করলে সাড়া না পেয়ে জানলা দিয়ে দেখেন ছেলের ঝুলন্ত দেহ। তখনই পরিবারের লোকেরা দরজা ভেঙে মৃতদেহ নামান। স্থানীয় চিকিৎসকরা বিশ্বজিৎকে মৃত বলে ঘোষণা করেন। খবর পেয়ে সকাল ১১ টা নাগাদ পুলিশ মৃতদেহ উদ্ধার করে আনেন। মৃতের ভাই অভিজিৎ ওঝা বলেন , আমার দাদা একটি মেয়ের সাথে প্রেমের সম্পর্কে জড়িয়ে পড়েছিল। সেই মেয়েটি হঠাৎই দাদাকে না বলে দেয়। সে পূর্ব বিবাহিত ও তার সন্তান আছে বলে। সে কারণেই আঘাত পেয়ে দাদা আত্মহত্যা করেছে। আমার দাদার মৃত্যুর সঠিক তদন্ত চাই। পাঁশকুড়া থানার ওসি অজিত কুমার ঝাঁ বলেন, মৃতদেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য তমলুক জেলা হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। একটি অস্বাভাবিক মৃত্যুর মামলা রুজু করে তদন্ত শুরু করা হয়েছে।
Bengali Movie Air Hostess

Loading...

No comments

Powered by Blogger.