বিবাহ বহির্ভূত সম্পর্কের জের? হাওড়া স্টেশনে মহিলার পেটে ছুরি

বিবাহ বহির্ভূত সম্পর্কের জের? হাওড়া স্টেশনে মহিলার পেটে ছুরি

 হাওড়া স্টেশনে এক মহিলাকে ছুরি মেরে খুনের চেষ্টার অভিযোগ উঠল এক ব্যক্তির বিরুদ্ধে। ওই ব্যক্তি মহিলার পূর্বপরিচিত বলে জানা গিয়েছে। আহত মহিলাকে উদ্ধার করে হাওড়া জেলা হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়। সেখানে তাঁর মৃত্যু হয়েছে। গ্রেফতার করা হয়েছে অভিযুক্তকে। 

গোলাবাড়ি থানার পুলিশ সূত্রে খবর, অভিযুক্তের নাম মুঙ্গেশ যাদব। তিনি পেশায় ব্যবসায়ী। তার কাছ থেকে একটি রক্তমাখা ছুরি উদ্ধার হয়েছে। জিজ্ঞাসাবাদের জানা গিয়েছে অভিযুক্তের বাড়ি মুম্বইয়ে।

পুলিশ জানিয়েছে, বনগাঁর ঠাকুরনগরের বাসিন্দা টিঙ্কু বিশ্বাস ও তাঁর স্ত্রী রিভু বিশ্বাস দুই ছেলেকে নিয়ে হাওড়া স্টেশনে এসে ছিলেন। তাঁদের সঙ্গে ছিলেন অভিযুক্ত মুঙ্গেশ যাদব। 

বেশ কয়েক বছর আগে স্বামীর সঙ্গে কর্মসূত্রে  মুম্বই যান রিভু বিশ্বাস।  তাঁর স্বামী টিঙ্কু বিশ্বাসের দাবি, সেখানেই দুজনের মধ্যে প্রেমের সম্পর্ক তৈরি হয়। মুঙ্গেশের কাছ থেকে দুদফায় ১০ লক্ষ টাকা নিয়েছেন রিভু।

কিছু দিন আগে তাঁদের বাড়িতে আসে মুঙ্গেশ। বুধবার মুম্বইয়ে ফিরে যাচ্ছিলেন তিনি। স্বামী ও সন্তানকে নিয়ে তাঁকে ছাড়তে আসেন রিভু। সেই সময় হাওড়ার মালগুদামের সামনে তাঁদের মধ্যে বচসা হয়। সেই সময় পকেট থেকে একটি ছুরি বার করে মুঙ্গেশ রিভুর পেটে ঢুকিয়ে দেয় বলে অভিযোগ। রক্তাক্ত অবস্থায় তিনি লুটিয়ে পড়েন। যাত্রী জড়ো হয়ে গেলে তাদের দিকেও ছুরি নিয়ে তেড়ে যায় মুঙ্গেশ যাদব। 

 স্ত্রীকে রক্তাক্ত অবস্থা পড়ে থাকতে দেখে রিভু স্বামী একটি লোহার রড দিয়ে মুঙ্গেশের মাথায় আঘাত করে। তাতে জখম হন ওই ব্যক্তি। তাদের উদ্ধার করে তড়িঘড়ি হাওড়া জেলা হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়। সেখানে কিছুক্ষণ চিকিৎসার পর মৃত্যু হয় রিভুর।  অভিযুক্ত মুঙ্গেশও হাসপাতালে চিকিৎসাধীন। 

পুলিশ খুনে মামলা দায়ের করে ঘটনার তদন্ত শুরু করেছে।

West Bengal