OMG: তরুণীরা নগ্ন হলেই মিলবে ঋণ


নগ্ন ছবির বিনিময়ে তরুণীদের দ্রুত ঋণ দেওয়ার ব্যবস্থা করছে একাধিক ক্ষুদ্রঋণ সংস্থা। ‘নেকেড লোন সার্ভিস’ নামে এক অদ্ভুত ঋণ সেবা চালু করেছে চীনের বেশ কিছু ক্ষুদ্রঋণ সংস্থা। সংবাদমাধ্যম ভাইস ডট কম এর এক প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, ওই সংস্থাগুলো থেকে ঋণ নিতে হলে দুটি শর্ত পূরণ করতে হবে। একে তো ঋণগ্রহীতাকে অবশ্যই তরুণী হতে হবে এবং তাকে ঋণের প্রতিশ্রুতি হিসেবে অবশ্যই নিজের নগ্ন সেলফি পাঠাতে হবে। আর এই শর্তগুলোতে রাজি হচ্ছেন দলে দলে তরুণী।দেশটিতে তরুণ প্রজন্মের কাছে নগদ টাকার চাহিদা বেশি হওয়ায় এমন বিচিত্র শর্তে রাজি হচ্ছেন তরুণীরা। ‘নেকেড লোন সার্ভিস’ এর মূল জায়গাটি হলো- এখানে ঋণগ্রহীতারা যদি ঋণ পরিশোধে ঝামেলা করেন, তাহলে তার নগ্ন সেলফি প্রকাশ করে দেবে সংস্থা।নগ্ন ছবির বিনিময়ে তরুণীদের দ্রুত ঋণ দেওয়ার ব্যবস্থা করছে একাধিক ক্ষুদ্রঋণ সংস্থা। ‘নেকেড লোন সার্ভিস’ নামে এক অদ্ভুত ঋণ সেবা চালু করেছে চীনের বেশ কিছু ক্ষুদ্রঋণ সংস্থা। সংবাদমাধ্যম ভাইস ডট কম এর এক প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, ওই সংস্থাগুলো থেকে ঋণ নিতে হলে দুটি শর্ত পূরণ করতে হবে। একে তো ঋণগ্রহীতাকে অবশ্যই তরুণী হতে হবে এবং তাকে ঋণের প্রতিশ্রুতি হিসেবে অবশ্যই নিজের নগ্ন সেলফি পাঠাতে হবে। আর এই শর্তগুলোতে রাজি হচ্ছেন দলে দলে তরুণী।
প্রতিবেদনে আরও বলা হয়েছে, ২০১৬ সালে মোট ১৬১ জন তরুণীর এমন নগ্ন ছবি অনলাইনে প্রকাশ করে দেয় এসব ঋণ সংস্থাগুলো। এইসব তরুণীদের বয়স ১৯ থেকে ২৩ বছরের মধ্যে। তাদের নেওয়া ঋণের পরিমাণ ছিল এক হাজার থেকে দুই হাজার মার্কিন ডলারের মধ্যে।
‘নেকেড লোন সার্ভিস’ এ গ্রাহকের সংখ্যা বৃদ্ধি নিয়ে চিন্তায় পড়েছে দেশটির ক্ষমতাসীন শিনজো আবে সরকারও। আপাতত এই ধরনের সংস্থার বিরুদ্ধে আইনি পদক্ষেপ করার চেষ্টায় রয়েছে তারা।
এদিকে ভোগ্যপণ্যের প্রতি তরুণ প্রজন্মের ক্রমবর্ধমান চাহিদাই যে এই কাণ্ডের পেছনে, তা জানাচ্ছেন দেশটির অর্থনীতিবিদরা।
Powered by Blogger.