আফ্রিকান নিগ্রোদের ফেমাস সার্কাস রাজ্যে


ভরা শীতের মরসুমে বারুইপুরের রায় চৌধুরী পরিবারের রাস মেলায় বড় আকর্ষণ আফ্রিকান ফেমাস সার্কাস । বারুইপুরের রাস মাঠে বসেছে এই সার্কাসের আসর । সার্কাস থেকে অনেক আগেই উঠে গিয়েছে  বিনোদনের জন্য পশুদের খেলা আর তাই জমজমাটি ফেমাস সার্কাস  আফ্রিকান ৬ জন নিগ্রো সাথে ১১ জন মনিপুরির  জিম ন্যাস্টিক খেলা  সহ জীবন কে বাজি রেখে আকর্ষণীয় ব্যালান্সের খেলা নিয়েই বাজি মাত করছে দর্শকদের  । এর সাথেই রয়েছে বিশালাকার জল হস্তির প্রদর্শন সহ কুকুর ,উট আর ঘোড়ার হরেক রকম খেলা । যা মন কাড়ছে  দর্শকদের । বারুইপুরের রাস মাঠে প্রতিদিন দুপুর ১ টা ,৪ টে আর সন্ধে ৭ টা তিনটি শোয়ে দেখানো হচ্ছে এই আফ্রিকান ফেমাস সার্কাস । মনিপুরি ছেলে –মেয়েদের বেম্বু ব্যান্স , হরেক রিঙের খেলা , জোকার সেজে ব্যালান্সিং সহ উড়ন্ত ব্যালান্সিং খেলা নজর কাড়ছে , একই সাথে ৬ আফ্রিকান নিগ্রোর আগুনের মধ্যে লম্ফ জম্প থেকে শুরু করে গানের সুরে নাচের তালে  আকর্ষণীয়  জিম ন্যাস্টিক বাড়তি পাওনা দর্শকদের । রয়েছে গ্লোবের মধ্যে জীবন কে বাজি রেখে চার বাইকের এক সাথে রেসিং , ফায়ার জ্যাম্প সহ তিন জোকারের  হরেক মজার খেলা সাথে কাকাতুয়া থেকে ম্যাকাও ,টিয়ার নাগর দোলা থেকে শুরু করে সাইকেল রেসিং । ম্যানেজার বিশ্বাস বাবু আর সজল বাবু জানান , বিনোদনের ভরা প্যাকেজ এই আফ্রিকান ফেমাস সার্কাসে , আফ্রিকান নিগ্রো থেকে শুরু করে মনিপুরি ছেলে মেয়েদের খেলা মন ভরাবে দর্শক দের । সাথে কুকুর ,উট ,ঘোড়ার ,জল হস্তিরও দেখা মিলবে  । তিনটি শোয়ে  দেখানো হচ্ছে এই সার্কাস । বারুইপুরের রাস মেলা চলে এক মাস । মেলাতে হরেক রকম দোকান ,মহিহারি থেকে শূরু করে কাঠের ,গাছের দোকান কোনটাই বাদ যায় না ।
Powered by Blogger.