বিশ্বকাপে পাকিস্তানের খেলার সম্ভাবনা নেই

[pullquote align="normal"] [/pullquote]

বিশ্বকাপ শুরু হতে বাকি মাত্র কয়েকটা দিন৷ বিশ্বকাপ যুদ্ধে নিজেদের সেরাটা দিতে অন্য দেশগুলি যখন গেমপ্ল্যান সাজাতে ব্যস্ত, তখন বিশ্বকাপে অংশগ্রণ করা নিয়ে চিন্তায় অলিম্পিক গেমস ও বিশ্বকাপ মিলিয়ে সাতবারের সোনাজয়ী চ্যাম্পিয়ন দল৷

কোনও রাজনৈতিক কারণ নয় ভারতের মাটিতে বিশ্বকাপ খেলতে আসায় পাকিস্তানের প্রধান বাধা আর্থিক সমস্যা৷ পাকিস্তানের হকি ফেডারেশনের ভাঁড়ার এখন শূন্য বললেই চলে৷ দেশের ক্রিকেট বোর্ডের থেকে তাই লোন চেয়ে বিশ্বকাপে দল পাঠানোর ভাবনা হকি বোর্ডের৷২৮ নভেম্বর থেকে ভারতের মাটিতে বসছে হকি বিশ্বকাপের আসর৷ সেই বিশ্বকাপের মঞ্চে প্রতিবেশী দেশ পাকিস্তান আদৌ খেলতে পারবে কিনা, সেই নিয়ে চিন্তায় তারা৷
পাকিস্তানের ক্রিকেট বোর্ড এখনও লোন দেওয়ার ব্যাপারে কোনও আগ্রহ দেখায়নি৷ ক্রিকেট বোর্ডের পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে, ইতিমধ্যেই তাদের মাথায় ১ কোটি টাকার দেনা রয়েছে৷ ফলে পাকিস্তান হকি দলের বিশ্বকাপে অংশগ্রহণ করা এখন অনিশ্চিত৷
শোনা যাচ্ছে প্রধানমন্ত্রী ইমরান খানের কাছে এই নিয়ে চিঠি লিখেছে সেদেশের হকি সংস্থা৷ চিঠিতে ভারতে বিশ্বকাপ খেলতে আসার জন্য ৮ কোটি টাকা অনুদান চাওয়া হয়েছে৷ পরিস্থিতি যা তাতে বিশ্বকাপে পাকিস্তানের খেলার সম্ভাবনা নেই বললেই চলে৷
যদিও পাক হকি ফেডারেশনের কর্তারা এখনই হাল ছাড়ছেন না৷ বোর্ডের আর্থিক সংকটের কথা স্বীকার করেছেন পাক হকি ফেডারেশনের সচিব সাহবাজ আহমেদ৷ তিনি বলেন, পাকিস্তানের হকি ফেডারেশনের আর্থিক দুরবস্থা নিয়ে প্রচারিত খবর একেবারে সত্যি ঘটনা৷ সংকটের কথা সরকারকে জানানো হয়েছে৷ ফান্ডিং নিয়ে সরকারের সাহায্যের আশা রাখছি৷ দল ঠিক সময়েই ভারতে দিয়ে বিশ্বকাপ খেলবে এমনটাই আশা রাখি৷
ফেডারেশনের আর্থিক সংকটের জন্য এর আগে মাসকাটে আয়োজিত এশিয়ান চ্যাম্পিয়নশিপ ট্রফির সেমিফাইনাল ম্যাচের আগে খেলোয়াড়দের হোটেল ছাড়তে বলা হয়েছিল৷ পরে ফাইনালে প্রবল বৃষ্টির কারণে ম্যাচ বাতিল হলে ভারত-পাকিস্তানকে যুগ্মভাবে চ্যাম্পিয়ন ঘোষণা করা হয়৷ জানা যায় সেবার প্রধানমন্ত্রী ইমরানের মধ্যস্থতায় খেলোয়াড়দের হোটেল ছাড়তে হয়নি, সম্মান বেঁচেছিল পাক হকি ফেডারেশনের৷
[pullquote align="normal"] [/pullquote]
Powered by Blogger.